বৃহস্পতিবার , ৯ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

উলিপুরে ৭টি মন্দির ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ, আটক ১৮




কুমিল্লার একটি পূজামণ্ডপে পবিত্র কুরআন শরীফ অবমাননার ঘটনায় কুড়িগ্রামের উলিপুরে প্রায় ৭টি মন্দিরে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ চালিয়েছে বিক্ষুব্ধ জনতা। গত বুধবার রাতে উপজেলার গুনাইগাছ, থেতরাই ও হাতিয়া ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। মন্দিরে হামলা ভাঙচুরের সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে পুলিশ ১৮ জনকে গ্রেপ্তার করেছে। এ ঘটনায় উপজেলার সর্বত্রই চরম আতংক বিরাজ করছে। পরিস্থিতি সামাল দিতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তৎপর রয়েছেন।

জানা গেছে, গত বুধবার সন্ধ্যায় উলিপুর মসজিদুল হুদা থেকে একদল বিক্ষুব্ধ মুসল্লী শহরের প্রধান সড়কে প্রায় ঘন্টাব্যাপী বিক্ষোভ করেন। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি শান্ত করে বিক্ষোভ কারীদের ছত্রভঙ্গ করেন। এরপর রাত সোয়া নয়টার দিকে একদল উৎসুক জনতা ফের শহরের মূল পয়েন্ট সহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে বিক্ষোভ করেন। পরে তাদেরকে ছত্রভঙ্গ করে দেয়া হয়। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর বিক্ষোভে ফেটে পড়েন উৎসুক জনতা।

পশ্চিম কালুডাঙ্গা ব্রাহ্মনপাড়া দূর্গা মন্দিরের পুরোহিত জীবন কৃষ্ণ চন্দ্র চক্রবর্তী বলেন, রাত সাড়ে ১০টার দিকে প্রায় ১ হাজার থেকে ১২’শ মানুষ এসে মন্দিরে হামলা ও অগ্নি সংযোগ চালায়। এতে প্রতিমাসহ সব কিছু ধ্বংস হয়ে করে দেয়।

হোকডাঙা ভারতপাড়া সর্বজনীন দূর্গা মন্দিরের সাধারণ সম্পাদক কমলেন্দু রায় জানান, রাত বারোটার দিকে লাঠি শোঠা নিয়ে একদল লোক এসে মন্দিরে প্রতিমা ভাঙচুর চালায়। এছাড়াও পাশের বাড়িতে হামলা করে তারা।

নেফরা শ্রী শ্রী দূর্গা মন্দিরের সভাপতি নিপেন রায় বলেন, রাত ১১টার দিকে প্রায় ৫ থেকে ৭‘শ লোক এসে মন্দিরের গ্রিল টিন, প্রতিমা ও পাশের বাড়ি ঘর ভাঙচুর করে। এরপর খড়ের গাদায় আগুন লাগিয়ে দেয়।

এছাড়াও পশ্চিম কালুডাঙ্গা সর্বজনীন দূগার্ মন্দির, থেতরাই ফাসিদাহ বাজার সার্বজনীন দূর্গামন্দির, হাতিয়া পুরাতন অনন্তপুর বাজার সার্বজনীন দূর্গামন্দির, হাতিয়া ভবেশ নম:দাস পাড়া দূর্গা সর্বজনীন মন্দিরে হামলা ও ভাঙচুর চালায় তারা। বুধবার রাত থেকে পরিস্থিতি সামাল দিতে ২ প্লাটুন বিজিবির টহল জোরদার করা হয়েছে।

এ ঘটনায় স্থানীয় সংসদ সদস্য অধ্যাপক এম.এ মতিন, কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রেজাউল করিম, রংপুর রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি মো. ওয়ালিদ হোসেন, পুলিশ সুপার সৈয়দা জান্নাত আরা, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আমান উদ্দিন আহমেদ মঞ্জু, উলিপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা গোলাম হোসেন মন্টু, ভাইস চেয়ারম্যান আবু সাঈদ সরকারসহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

উলিপুর থানার ওসি ইমতিয়াজ কবির বলেন, এখন পর্যন্ত ভিডিও ফুটেজ ও বিভিন্ন তথ্যের ভিত্তিতে ১৮ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনে প্রস্তুতি চলছে।

উল্লেখ্য, গত মঙ্গলবার রাতে কুমিল্লা নগরীর নানুয়ার দিঘিরপাড়ের একটি দুর্গাপূজার মণ্ডপে হনুমান মূর্তির কোলে পবিত্র কুরআন শরীফ রাখার একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে।

বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

পাঠকের মতামত




ই-মেইলে সর্বশেষ সংবাদ

বিনামূল্যে সর্বশেষ সংবাদ সরাসরি আপনার ই-মেইলে পেতে আজই সাবস্ক্রাইব করুন!

তথ্যের গোপনীয়তা রক্ষায় আমরা সর্বোচ্চ সতর্ক।
আমাদের গোপনীয়তার নীতি




এক ক্লিকে জেনে নিন বিভাগীয় খবর




করোনা তথ্য
দেশে আক্রান্ত
১৫,৭৮,৫৫০
৯ ডিসেম্বর, ২০২১
করোনা তথ্য
দেশে সুস্থ
১৫,৪৩,৪৯১
ডিসেম্বর ৯, ২০২১
করোনা তথ্য
দেশে মৃত্যু
২৮,০১৬
ডিসেম্বর ৯, ২০২১
করোনা তথ্য
বিশ্বে মৃত্যু
৫২,৯৮,০৯৫
ডিসেম্বর ৯, ২০২১
করোনা তথ্য
বিশ্বে আক্রান্ত
২৬,৮২,২৬,৮৩৫
ডিসেম্বর ৯, ২০২১
©মেঘনা নিউজ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত