মঙ্গলবার , ১৯শে নভেম্বর, ২০১৯ ইং
শিরোনাম :
সাপাহারে জেডিসি পরীক্ষায় এইচএসসি পড়ুয়া শিক্ষার্থী

সাপাহারে জেডিসি পরীক্ষায় এইচএসসি পড়ুয়া শিক্ষার্থী

সাপাহারে জেডিসি পরীক্ষায় এইচএসসি পড়ুয়া শিক্ষার্থী

গোলাপ খন্দকার, সাপাহার (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ নওগাঁর সাপাহারে সাপাহার সরকারি ডিগ্রী কলেজের এইচএসসি পড়ূয়া শিক্ষার্থী পূনরায় জয়দেবপুর ইসলামীয়া মাদ্রাসা থেকে জেডিসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে এসে আটক হয়েছে।

জানা গেছে, শনিবার সারাদেশের ন্যায় একযোগে শুরু হয় জেএসসি জেডিসি সমমানের পরিক্ষা, এই পরীক্ষায় সাপাহার সরফতুল্লাহ ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে সাপাহার সরকারি ডিগ্রী কলেজের এইচএসসি পড়ুয়া এক
শিক্ষার্থী উপজেলার জযদেবপুর ইসলামীয়া মাদ্রাসার হয়ে নাম পরিবর্তন করে জেডিসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন ।
জয়দেবপুর ইসলামীয়া মাদ্রাসার জেডিসি পরীক্ষার্থীর সংখ্যা কম হওয়ায় পরীক্ষার্থীর সংখ্যা বৃদ্ধি করতে অবৈধ কৌশল অবলম্বন করে মাদ্রাসা কতৃপক্ষ।

ওই এলাকার পাশ্ববর্তী জয়দেবপুর শুটকিডাঙ্গা গ্রামের দুরুল হোদার ছেলে মনিরুল ইসলামকে তার নাম পরিবর্তন করে মানিরুল ইসলাম নামে ওই মাদ্রাসা হতে চলতি জেডিসি পরীক্ষার্থী সেজে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করান মাদ্রাসা কতৃপক্ষ।

পরীক্ষা চলাকালিন সময়ে উপজেলা সহকারী ভূমি কমিশনার (এসিল্যান্ড) সে পরীক্ষার্থীর মতিগতি দেখে সন্দেহ হলে বিভিন্ন প্রশ্নের এক পর্যায় সে শিক্ষার্থী বলেন ওই মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের প্ররোচনায় ছাত্র সংখ্যা বৃদ্ধি করতে তাকে পরীক্ষা দিতে বলায় সে এই পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন বলে স্বীকার করে।

আটকের পর ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ওই শিক্ষার্থীকে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন সাপাহার উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কল্যান চৌধুরী।
এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কল্যান চৌধুরীর সাথে কথা হলে তিনি ঘটনার সত্যাতা স্বীকার করে বলেন এ ঘটনায় পরীক্ষার্থী এবং মাদ্রাসা

কর্তৃপক্ষ উভয়ে অপরাধী, বর্তমানে পরীক্ষার্থীকে সাজা প্রদান করা হয়েছে এবং মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




এক ক্লিকে জেনে নিন বিভাগীয় খবর

©মেঘনা নিউজ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed by Ateam IT Solution