বুধবার , ৩রা জুন, ২০২০ ইং
শিরোনাম :
ধর্মপাশায় নতুন করে কারও শরীরে করোনাভাইরাস ধরা পড়েনি, করোনায় আক্রান্ত ১৫ জনের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১২ জন আগামী বাজেটে মোবাইলের কলরেটে ভ্যাট ট্যাক্স বাড়ছে প্রথম আলো ট্রাস্টের পক্ষ থেকে কেশবপুরে আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করোনা মোকাবেলায় মণিরামপুর খুচরা কাঁচাবাজার ব্যবসায়িক নেতৃবৃন্দের বিশেষ নির্দেশনা জারি মৃত্যুর হিসাবে ঢাকাকে পেছনে ফেলল চট্টগ্রাম যুক্তরাজ্যে করোনায় ১৮২ বাংলাদেশির মৃত্যু যুক্তরাজ্যে করোনায় ১৮২ বাংলাদেশির মৃত্যু চৌগাছায় আট জুয়াড়ি আটক শশীভূষণে শহীদ জিয়াউর রহমানের ৩৯ তম শাহাদাত বার্ষিকীতে দোয়া মিলাদ অনুষ্ঠিত অচিরেই সুদিন ফিরবে : প্রধানমন্ত্রী
মোট আক্রান্ত

৩৬৭৫১

সুস্থ

৭৫৭৯

মৃত্যু

৫২২

ন্যাশনাল কল সেন্টার ৩৩৩ | স্বাস্থ্য বাতায়ন ১৬২৬৩ | আইইডিসিআর ১০৬৫৫ | বিশেষজ্ঞ হেলথ লাইন ০৯৬১১৬৭৭৭৭৭ | সূত্র - আইইডিসিআর

কিমের শরীরে অস্ত্রোপচার নিয়ে নতুন তথ্য দিল দ. কোরিয়া

কিমের শরীরে অস্ত্রোপচার নিয়ে নতুন তথ্য দিল দ. কোরিয়া

Ad_970x120

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উনের কোনো ধরনের শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়নি এবং তার শরীরে অস্ত্রোপচারেরও প্রয়োজন পড়েনি বলে জানিয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া। সম্প্রতি জনসমক্ষে কিমের অনুপস্থিতির জের ধরে তার সম্পর্কে ব্যাপক গুজব ছড়িয়ে পড়ার পরিপ্রেক্ষিতে সিউল একথা জানাল।

এমনকি গত শনিবার সব গুজবকে পেছনে ফেলে কিম জং-উন প্রকাশ্যে একটি সার কারখানা উদ্বোধন করার পরও তার স্বাস্থ্য নিয়ে গুজব অব্যাহত থাকে।

বার্তা সংস্থা এপি মঙ্গলবার (৫ মে) জানিয়েছে, দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট প্রাসাদ ‘ব্লু হাউস’র নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন কর্মকর্তা বলেছেন, সিউল এ ব্যাপারে নিশ্চিত হয়েছে যে, কিম জং-উন সাম্প্রতিক সময়ে কোনো স্বাস্থ্যগত সমস্যায় পড়েননি। অবশ্য এ সংক্রান্ত গোয়েন্দা সূত্র সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে তিনি অপারগতা প্রকাশ করেন।

এ পর্যন্ত উত্তর কোরিয়ার যেকোনো খবর সম্পর্কে দক্ষিণ কোরিয়ার গোয়েন্দা তথ্য সবচেয়ে নির্ভরশীল হিসেবে প্রমাণিত হয়েছে। সম্প্রতি আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম যখন কিম জন-উন সম্পর্কে অসংখ্য গুজব ছড়াচ্ছিল তখন দক্ষিণ কোরিয়া অবিচলভাবে সেসব প্রত্যাখ্যান করে বলে আসছিল, উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ নেতৃত্বে কোনো ধরনের অস্বাভাবিক তৎপরতা লক্ষ্য করা যায়নি।

কিম জং-উন গত মাসের মাঝামাঝি সময়ে তার পিতামহ এবং উত্তর কোরিয়ার প্রতিষ্ঠাতা কিম ইল-সং- এর জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত থাকার পর তার সম্পর্কে গুজব ডালপালা মেলতে থাকে। তার হার্টে অস্ত্রোপাচার হওয়ার পর তিনি সংকটজনক অবস্থায় রয়েছেন বলে খবর প্রচারিত হয়। এমনকি তিনি মারা গেছেন বলে জানিয়ে অনেক গণমাধ্যম তার উত্তরসূরিও খোঁজা শুরু করে দেয়।

কোনো কোনো মিডিয়া জানায়, অত্যধিক মুটিয়ে যাওয়া এবং ধুমপান ত্যাগ না করার কারণেই কিম জং-উনের এই পরিণতি হয়েছে। কিন্তু এসব গুজব পেছনে ফেলে গত শনিবার কিম জং-উন প্রকাশ্যে রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে যোগ দেন। গতকাল খবর বের হয় যে, নিজের আশপাশের লোকদের বিশ্বস্ততা ও আনুগত্য যাচাই করার জন্য উত্তর কোরিয়ার নেতা নিজেই নিজের মৃত্যুর গুজব ছড়িয়েছিলেন। পার্সটুডে।

বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

Ad_970x120

ইমেইলে সর্বশেষ সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ সরাসরি আপনার ইনবক্সে পেতে আজই গ্রাহক হোন!

তথ্যের গোপনীয়তা রক্ষায় আমরা সর্বোচ্চ সতর্ক।




এক ক্লিকে জেনে নিন বিভাগীয় খবর

Ad_970x120

©মেঘনা নিউজ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত